অপূর্ব-মেহ্জাবীনের ‘কেমিস্ট্রি’

চলতি সময়ের সফল ও জনপ্রিয় জুটি অপূর্ব – মেহ্‌জাবীন। প্রায় অর্ধশত নাটকে এরই মধ্যে অভিনয় করা হয়ে গেছে তাদের। এর মধ্যে এই জুটি অভিনীত ‘বড় ছেলে’ নাটকটি রেকর্ড প্রায় ২১ মিলিয়নের বেশি সংখ্যক বার ইউটিউবে দেখা হয়েছে। এবারই প্রথম নিজেদের রসায়নের রহস্য জানাতে হাজির হয়েছেন গণমাধ্যমে; মাছরাঙা টেলিভিশনের ঈদের নিয়মিত আয়োজন ‘কেমিস্ট্রি’ তে। রুম্মান রশীদ খান-এর গ্রন্থনা ও হুমায়ূন কবীরের প্রযোজনায় এবারের ‘কেমিস্ট্রি’ উপস্থাপনা করেছেন এ সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রী-মডেল ও অপূর্ব-মেহ্‌জাবীনের সহকর্মী টয়া।

অপূর্ব জানান, কোনো নাটক কিংবা অনুষ্ঠানের সেটে নয়, দুজনের প্রথম দেখা কাকতালীয়ভাবে একটি শপিং মলে। মেহ্জাবীন বলেন, ‘বড় ছেলে’ নাটকে অভিনয় করার আগে ব্যক্তি জীবনে নিজের বাবা, বন্ধু কিংবা অন্য কোনো পুরুষকে কাঁদতে দেখেননি। অপূর্ব’র কান্না দেখে স্বত:স্ফূর্তভাবেই মেহ্জাবীন কান্না চলে এসেছিল, অভিনয় করতে হয়নি। মেহ্জাবীন জানান, অপূর্ব’র সাথে কখনো জুটি ভেঙে গেলে কিংবা কাজ করা বন্ধ হয়ে গেলে একজন পরামর্শককে মিস করবেন তিনি। যে কোনো বিষয়ে যে কোনো পরামর্শের জন্য অপূর্ব সদা প্রস্তুত। অপূর্ব মনে করেন  মেহ্জাবীনের সাফল্যের মূলমন্ত্র তার সততা, আন্তরিকতা, নিষ্ঠা, পরিশ্রম ও আত্মবিশ্বাস।

‘কেমিস্ট্রি’ অনুষ্ঠানের জন্য মেহ্জাবীনকে শাড়ি উপহার দিয়েছেন অপূর্ব’রই স্ত্রী অদিতি। প্রিয় সহকর্মীর পরিবারের প্রতিও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করতে ভোলেন না মেহ্জাবীন। স্বকণ্ঠে গান, অভিনয় করে প্রিয় ভক্ত-দর্শকদের জন্য জমজমাট এক অনুষ্ঠান উপহার দিতে যাচ্ছেন অপূর্ব-মেহ্জাবীন। আসছে ঈদের ৫ম দিন, রাত ৮টায় মাছরাঙা টেলিভিশনে প্রচারিত হবে ‘কেমিস্ট্রি’।