কয়েনের বদলে ব্যাট দিয়ে টস!

কয়েনের বদলে ব্যাট দিয়ে টস!

খেলা শুরুতে কয়েন নিক্ষেপ (টস) করে ব্যাটিং বা ফিল্ডিং নির্ধারণ করা ক্রিকেটের প্রাচীন নিয়ম। ১৪১ বছরের ক্রিকেট ইতিহাসে এমনটিই হয়ে আসছে। তবে ক্রিকেটে ভক্তরা এমন কাণ্ড আগে কখনও দেখেননি। এমনভাবে টস করা যেতে পারে, সেটাই কেউ কখনও ভাবেননি। কয়েনের বদলে ব্যাট দিয়ে টস।

বিগ ব্যাশে এমনই একখানা অভূতপূর্ব কাণ্ড ঘটে গেল বৃহস্পতিবার (২০ ডিসেম্বর)। ব্যাট দিয়ে টস। তবে এমন একখানা কাণ্ড ঘটিয়ে বিগ ব্যাশের কর্তারা যে খুব কুর্ণিশ পেলেন তা নয় বরং সমালোচনাই হল বেশি।

ব্যাটের মাধ্যমে টস করেই ঠিক হল, কোন দল আগে ব্যাট করবে। ব্রিসবেন হিট বনাম অ্যাডিলেড স্ট্রাইকার্স-এর খেলা ছিল। বিগ ব্যাশের এই ম্যাচ ইতিহাসের সাক্ষী হয়ে রইল। ব্যাট শুন্যে ছুঁড়ে টস করলেন অজি প্রাক্তন ম্যাথিউ হেডেন। কয়েনে টস হলে যে অধিনায়ক কল করতেন তাঁকে হেড বা টেইল বেছে নিতে হত। কিন্তু ব্যাটে টস হওয়ায় হেড-টেইলের বালাই রইল না। তার বদলে এল হিলস-ফ্ল্যাটস।

চলতি মাসের গোড়ার দিকে বিগ ব্যাশ কর্তৃপক্ষের তরফে টসের এই রদবদলের কথা জানানো হয়েছিল। তখন থেকেই অনেক ক্রিকেট সমর্থক এমন সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করতে শুরু করেছিলেন।

নতুন একটা কিছু করার উদ্যোগ। এমন যুক্তিই দিলেন বিগ ব্যাশের লিগ প্রধান কিম ম্যাকোনি। বললেন, ”আমরা জানি, অনেকেই এই পরিবর্তন পছন্দ করেননি। কিন্তু বলুন তো শেষবার কবে আপনারা টসের জন্য এমন অধীর আগ্রহে বসে ছিলেন?” তবে তার এমন যুক্তি মানলেন না সিংহভাগ সমর্থক।

তারা পাল্টা লিখলেন, ব্যাট দিয়ে টসের কোনও বৈজ্ঞানিক ভিত্তি নেই। এক্ষেত্রে বারবার ব্যাটের একটা দিকই মাটিতে পড়বে। কেউ কেউ আবার লিখলেন, ক্রিকেট ঐতিহ্যের সঙ্গে অঙ্গাঙ্গিভাবে জড়িত টস। বিগ ব্যাশ সেই ঐতিহাসিক।

মতামত দিন