বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা নয়, সরাসরি দ্বিতীয় রাউন্ডে আফগানিস্তান

বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা নয়, সরাসরি দ্বিতীয় রাউন্ডে আফগানিস্তান

আগামী ২০২০ সালের টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে অস্ট্রেলিয়াতে। এ বিশ্বকাপে ‘সুপার টেন’ নয়, থাকবে ‘সুপার ১২’। এই সেরা ১২ পর্বেও সরাসরি খেলতে পারছে না সাকিব আল হাসানের দল।

অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠেয় টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে সরাসরি খেলার সুযোগ পাবে র‍্যাংকিংয়ের শীর্ষ ৮ দল। বর্তমান টি-টোয়েন্টি র‍্যাংকিংয়ে ১০ নম্বরে থাকায় কপাল পুড়েছে টাইগারদের। নয় নম্বরে থাকা শ্রীলঙ্কার সাথে বাংলাদেশকেও খেলতে হবে মূলপর্বে খেলার বাছাইপর্ব। এই বিশ্বকাপে সরাসরি খেলার সুযোগ পাবে আফগানিস্তান। কিন্তু পারছে না বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা।

প্রথম আট দল হিসেবে সরাসরি মূলপর্বে জায়গা নিশ্চিত হয়েছে ভারত, পাকিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড, দক্ষিণ আফ্রিকা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও আফগানিস্তানের। কিন্তু ৩১ ডিসেম্বর, ২০১৮ সময়কালে র‍্যাংকিংয়ে যথাক্রমে নবম ও দশম স্থানে রয়েছে শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশ। তাই গ্রুপ স্টেজের বাঁধা পার করেই মূলপর্ব নিশ্চিত করতে হবে মালিঙ্গা-সাকিবদের।

তিনবারের টুর্নামেন্ট ফাইনালিস্ট ও ২০১৪ চ্যাম্পিয়ন শ্রীলঙ্কা সরাসরি মূলপর্ব নিশ্চিত না করতে পারায় স্বভাবতই হতাশ অধিনায়ক লাসিথ মালিঙ্গা। তিনি জানান, টুর্নামেন্টের মূলপর্বে সরাসরি যোগ্যতা অর্জনে ব্যর্থ হওয়ায় হতাশ। প্রত্যেকেই চায় র‍্যাংকিংয়ে প্রথম আটে থেকে শেষ করতে। তবে মূলপর্বে যাওয়ার জন্য অতিরিক্ত ম্যাচ খেলার সুযোগ কাজে লাগাতে চাই।

হতাশ সাকিব আল হাসানও। তবে মূলপর্বে যোগ্যতা অর্জনে আশাবাদী বাংলাদেশ অধিনায়ক জানান, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মূলপর্বে যোগ্যতা অর্জন না করার কোনও কারণ নেই আমাদের। এখনও সুযোগ রয়েছে আমাদের, আমরা সেই সুযোগের পূর্ণ সদ্ব্যবহার করতে চাই।

মতামত দিন