সবুজ জার্সিতে লালের ছোঁয়া লাগছে

মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে সোমবার আসন্ন বিশ্বকাপের জন্য বাংলাদেশ দলের সবুজ রঙের জার্সি উন্মোচন করে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। সেই জার্সি নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা হচ্ছে বিস্তর। সবচেয়ে বেশি প্রশ্ন উঠেছে সবুজ জার্সিতে লালের ছোঁয়া না থাকা নিয়ে! এ নিয়ে সরব হয়ে উঠেছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম। অনেকেই বিশ্বকাপে বাংলাদেশের সবুজ জার্সির সঙ্গে আয়ারল্যান্ড কিংবা পাকিস্তান দলের জার্সির মিল দেখছেন! প্রবল সমালোচনার মুখে বিসিবি আমলে নিয়েছে বিষয়টি। সবুজ জার্সিতে লাল রঙ যোগ করতে যাচ্ছে দেশের ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি।
চাইলেই তো আর হুট করে জার্সি বদলে ফেল যায় না। যেহেতু আইসিসি এর সঙ্গে সম্পৃক্ত, তাই একটা প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যেতে হয়। আইসিসির কাছ থেকে জার্সি পাল্টানোর অনুমতি পেলেই কেবল তা সম্ভব। বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান জানিয়েছেন, আইসিসির কাছ থেকে এরই মধ্যে জার্সি পরিবর্তনের অনুমতি পাওয়া গেছে। শুধু তাই নয়, অনুমতি পাওয়ার পর নতুন জার্সির ডিজাইন আইসিসিতে পাঠানো হয় এবং সেটা অনুমোদনও পেয়ে গেছে।
সবুজ জার্সিতে বিসিবি লাল রঙ রাখতে চেয়েছিল, কিন্তু আইসিসির কারণেই সেই চাওয়া বাস্তবরূপ পায়নি। নাজমুল হাসানও বললেন এমনটাই, ‘আমাদের যে কমিটি আছে ওরা ডিজাইন পছন্দ করে আইসিসিতে পাঠিয়েছিল। আইসিসি যখন লাল হরফ ব্যবহার করতে মানা করে তখন ওরা অক্ষরগুলোকে সাদা করে দেয়। এ কারণেই সেখানে কোনো লাল রঙ ছিল না।’ সঙ্গে যোগ করেন, ‘জার্সি উন্মোচনের সময় লাল রঙ না থাকার বিষয়টি আমরা লক্ষ্য করিনি। ধরা পড়ার পর আইসিসির কাছে আমরা জানতে চাই জার্সিতে পরিবর্তন আনা সম্ভব কি না। তারা বলেছেন লাল রঙের হরফ কোনোভাবেই রাখা যাবে না। তখন আমরা নতুন ডিজাইন পাঠাই, যার অনুমোদন তারা দিয়েছে।’
মঙ্গলবার বিকালে ধানমন্ডিতে এক সংবাদ সম্মেলনে লাল রঙের জার্সি সাংবাদিকদের দেখান বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান। এই জার্সির দুই হাতা এবং বুকে আছে সবুজের ছোঁয়া। নাজমুল হাসান জানালেন, নতুন সবুজ জার্সিতে অনুরূপভাবেই থাকবে লালের ছোঁয়া। জানালেন, দুই হাতায় থাকছে লাল রঙ। বুকে লাল রঙের একটি শেড থাকবে। সেখানে সাদা রঙে লেখা থাকবে বাংলাদেশ।

মতামত দিন