No icon

বনানীতে আলী যাকেরের দাফন সম্পন্ন

শুক্রবার সকাল ৬টা ৪০ মিনিটে রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ক্যানসার ও করোনাযুদ্ধে হেরে গেলেন বহুমাত্রিক সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব আলী যাকের। প্রায় চার বছর ধরে ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করছিলেন তিনি। সম্প্রতি শরীরের অবনতি হওয়ায় জরুরি ভিত্তিতে হাসপাতালে নেওয়া হয়। কিছুটা সুস্থ হলে বাসায় নেওয়া হয়। তবে আবার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে দুদিন আগে করোনা টেস্ট করা হলে পজিটিভ ফল আসে।

আলী যাকেরআলী যাকের

শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে হাসপাতাল থেকে আগারগাঁওয়ে মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর প্রাঙ্গণে রাখা হয়। সেখানে তাঁকে রাষ্ট্রীয় সম্মাননা গার্ড অব অনার দেওয়া হয়। স্বজন ও সংগঠনগুলো সেখানে ফুলেল শ্রদ্ধা ও শেষ বিদায় জানান তাঁকে। প্রিয়জন, সহশিল্পীকে শ্রদ্ধা জানাতে মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর প্রাঙ্গণে উপস্থিত হয়েছিলেন সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার, ফেরদৌসী মজুমদার, নাট্যজন মামুনুর রশীদ, মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘরের ট্রাস্টি সারওয়ার আলী, মফিদুল হক, নাসির উদ্দীন ইউসুফ প্রমুখ।

কফিনের পাশে সারা যাকের, মামুনুর রশীদ, ইরেশ যাকের এবং আসাদুজ্জামান নূর।কফিনের পাশে সারা যাকের, মামুনুর রশীদ, ইরেশ যাকের এবং আসাদুজ্জামান নূর।

পরিবারের পক্ষে তাঁর মরদেহের পাশে উপস্থিত রয়েছেন তাঁর স্ত্রী সারা যাকের, ছেলে নাট্যাভিনেতা ইরেশ যাকের, মেয়ে শ্রিয়া সর্বজয়া।

বিকেলে বনানী কবরস্থানে আলী যাকেরকে সমাহিত করা হয়।

Comment As:

Comment (0)